logo
   প্রচ্ছদ  -   জাতীয়

২৫ হাজার রোহিঙ্গা পরিবারের জন্য প্রস্তুত ভাসান চর
Posted on Oct 11, 2018 03:37:31 PM.

২৫ হাজার রোহিঙ্গা পরিবারের জন্য প্রস্তুত ভাসান চর

পঁচিশ হাজার রোহিঙ্গা পরিবারের অস্থায়ী বসবাসের জন্য নোয়াখালীর ভাসান চরে সব ধরনের প্রস্তুতি শেষ হয়েছে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া।

বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে ঘূর্ণিঝড় ‘তিতলি’র প্রস্তুতি নিয়ে সংবাদ সম্মেলনে প্রশ্নের জবাবে এ কথা বলেন তিনি।

ত্রাণমন্ত্রী বলেন, ‘সেখানে ২৫ হাজার পরিবারকে নেয়ার জন্য সর্বপ্রকার প্রস্তুত আছি।’

ভাসান চরে রোহিঙ্গা পুনর্বাসন কার্যক্রম কবে উদ্বোধন কবে- জানতে চাইলে মায়া বলেন, ‘সব রেডি, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যেদিন বলবেন, সেদিনই। আমরা প্রস্তুত।’

তিনি বলেন, ‘আমি নৌবাহিনীকে ধন্যবাদ জানাই, অল্প সময়ে ওই জায়গাটা তারা তৈরি করেছে। না গেলে বুঝতে পারবেন না।’

সব মিলে সেখানে এক লাখ রোহিঙ্গা অস্থায়ীভাবে বসবাস করতে পারবেন জানিয়ে ত্রাণমন্ত্রী বলেন, ‘তারা মিয়ানমারের নাগরিক, তারা ওই দেশের নাগরিক হিসেবে শ্রদ্ধার সঙ্গে ওই দেশে ফিরে যাবে- এটাই আমরা চাই।’

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যে সহিংসতা ও মানবতাবিরোধী ধ্বংসযজ্ঞের কারণে রোহিঙ্গারা কক্সবাজারের টেকনাফ ও উখিয়া উপজেলা এবং বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যাংছড়ি উপজেলায় স্থায়ী ও অস্থায়ী ক্যাম্পসহ বিভিন্ন এলাকায় অবস্থান করছে।

মিয়ানমারের সীমান্তে পুলিশ ও সেনাবাহিনীর চেকপোস্টে হামলার ঘটনাকে কেন্দ্র করে গত বছরের ২৫ আগস্ট থেকে নতুন করে রাখাইনে রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর ওপর অভিযান চালাচ্ছে দেশটির সেনাবাহিনী। তখন থেকে রোহিঙ্গারা জীবন বাঁচাতে বাংলাদেশে পালিয়ে আসছে। বাংলাদেশে এখন ১১ লাখেরও বেশি নিবন্ধিত রোহিঙ্গা রয়েছে।

পরে সরকার নোয়াখালীর হাতিয়ায় ভাসান চরে রোহিঙ্গাদের পুনর্বাসনের সিদ্ধান্ত নেয়। প্রাথমিকভাবে এক লাখ রোহিঙ্গার পুনর্বাসনের জন্য ২ হাজার ৩১২ কোটি টাকার একটি প্রকল্প নেয়া হয়।

প্রকল্পটি ২০১৯ সালের ৩০ নভেম্বরের মধ্যে বাস্তবায়ন হবে। প্রকল্পের আওতায় রয়েছে, চরের ভূমি উন্নয়ন ও তীররক্ষা বাঁধ নির্মাণ, থাকছে এক হাজার ৪৪০টি ব্যারাক হাউস। আরও থাকবে ১২০টি শেল্টার স্টেশন, মসজিদ, দ্বীপটির নিরাপত্তার জন্য নৌবাহিনীর অফিস ভবন ও কর্মকর্তাদের জন্য বাসভবন। থাকছে অভ্যন্তরীণ সড়ক, পানি সরবরাহ ও নিষ্কাশন অবকাঠামো নির্মাণের পাশাপাশি প্রকল্প এলাকায় থাকবে নলকূপ ও পুকুর।

এ ছাড়া খাদ্য গুদাম, জ্বালানি ট্যাংক, হেলিপ্যাড, চ্যানেল মার্কিং ও মুরিং বয়া, বোট ল্যান্ডিং সাইট, মোবাইল ফোন টাওয়ার, রাডার স্টেশন, সিসি টিভি, সোলার প্যানেল, জেনারেটর ও বৈদ্যুতিক সাবস্টেশনও নির্মাণ হচ্ছে ভাসান চরে।




  এই বিভাগ থেকে আরও সংবাদ

   বিএনপির চকবাজার ট্র্যাজেডি নিয়ে রাজনীতি করা উচিত নয়: কাদের
   জনগণ ভালো থাকলে কিছু লোক অসুস্থ হয়ে পড়ে : প্রধানমন্ত্রী
   আজ বার্ন ইউনিটে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী
   কেউ বাঙালি সংস্কৃতি ধ্বংস করতে পারবে না : প্রধানমন্ত্রী
   চকবাজারে আগুন: নিহত স্বজনের মামলা
   একুশ শতকের উন্নয়নের মূল চালিকাশক্তি জীবনব্যাপী শিক্ষা: শিক্ষামন্ত্রী
   আগুনে প্রাণহানির ঘটনায় রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী ও স্পিকারের শোক
   চকবাজারে অগ্নিকাণ্ডে প্রাণহানিতে প্রধানমন্ত্রীর গভীর শোক
   ভাষা শহীদদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করলেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী
   যেভাবে পেলাম ২১শে ফেব্রুয়ারি
   শপথ নিলেন নারী এমপিরা
   সৌদি থেকে ফিরে আসলেন ৬২ নারী শ্রমিক
   দেশে ফিরলেন প্রধানমন্ত্রী
   বিশ্ব ব্যাংকের সহায়তায় নৌপথ ও স্থলবন্দরগুলো আরো বেশি গতিশীল হবে
   আজ পদ্মা সেতুতে বসছে অষ্টম স্প্যান
   বিনিয়োগে আমিরাতের সাড়া
   আজ আখেরি মোনাজাতের মাধ্যমে শেষ হচ্ছে বিশ্ব ইজতেমা
   ‘জলবায়ুর প্রভাব মোকাবিলায় বিশ্ব নেতাদের এগিয়ে আসতে হবে’
   রাজধানীতে বৃষ্টি
   জার্মানি সফর শেষে আবুধাবিতে পৌঁছেছেন প্রধানমন্ত্রী
   জার্মানি সফর শেষে আবুধাবি যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী
   বদির তিন ভাইসহ ১০২ মাদক ব্যবসায়ীর আত্মসমর্পণ
   শতাধিক ইয়াবা ব্যবসায়ীর আত্মসমর্পণ আজ
   আখেরি মোনাজাতে শেষ হলো প্রথম পর্বের ইজতেমা
   ভাষা আন্দোলনের ইতিহাস ও ঐতিহ্য নিয়ে আরো বেশি কাজ করতে হবে : রাষ্ট্রপতি
   বিএনপি-ঐক্যফ্রন্ট নির্বাচনে এসেছিল অসৎ উদ্দেশ্য নিয়ে : প্রধানমন্ত্রী
   রোহিঙ্গাদের ওপর নৃসংশতার তদন্তে আইসিসির সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানালেন প্রধানমন্ত্রী
   আজ ইজতেমার প্রথম পর্বের আখেরি মোনাজাত
   কবি আল মাহমুদ আর নেই
   আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন পরমাণু বিজ্ঞানী ড. ওয়াজেদ মিয়ার ৭৮তম জন্মদিন আজ


  পুরনো সংখ্যা